শুক্রবার, মার্চ ১, ২০২৪
Google search engine
Homeরাজনীতিসিলেট-২: বিপুল ভোটে বিজয়ী শফিকুর রহমান চৌধুরী

সিলেট-২: বিপুল ভোটে বিজয়ী শফিকুর রহমান চৌধুরী

জুবেল আহমেদ, ওসমানীনগর প্রতিনিধি:

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট-২ আসনে (ওসমানীনগর বিশ্বনাথ) বেসরকারী ভাবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শফিকুর রহমান চৌধুরী। ৬১ হাজার ৭শ ২৭ ভোটের ব্যবধানে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। ফলে ১০ বছর পর দলীয় প্রার্থীর বিজয় হয়েছে আওয়ামী লীগের। রবিবার বিকাল ৪টায় ভোট গ্রহন শেষ হলে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে নৌকা প্রতিকের ক্ষুদ্র-ক্ষুদ্র বিজয় মিছিল এবং আওয়ামী লীগের কর্মী সমর্থকদের মধ্যে উল্লাস করতে দেখা গেছে।

ভোট গ্রহন চলাকালে সরজমিনে কয়েকটি কেন্দ্র পরিদর্শন করে দেখা গেছে, জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সারা দেশের ন্যায় একযোগে সিলেট-২ আসনের অন্তর্ভুক্ত ওসমানীনগরে সকাল ৮ টা থেকে ভোট গ্রহন শুরু হলেও উপজেলার বিভিন্ন ভোট কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি কম লক্ষ করা গেছে। তবে, বেলা বাড়ার সাথে সাথে কয়েকটি কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি ছিলো লক্ষণীয়।

এদিকে, ভোটগ্রহন চলাকালে নানা অনিয়মের অভিযোগ এনে দুপর দুইটায় গোয়ালাবাজারস্থ একটি রেস্টুরেন্টে প্রেস ব্রিফিং করে নির্বাচনে অংশ নেয়া ৪ প্রার্থী নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দেন। তারা নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দিলেও ভোট গ্রহন ছিলো স্বাভাবিক। সকাল ৮টা থেকে বিরামহীন ভাবে ভোট গ্রহন চলে বিকাল-৪টা পর্যন্ত। পরে সহকারী রিটার্নি কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে কেন্দ্র ভিত্তিক ফলাফল ঘোষণা শুরু হয়। শেষে খবর পাওয়া পর্যন্ত ৭ প্রার্থীর মধ্যে ব্যাপক ভোটের ব্যবধানে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন নৌকা প্রতিকের প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী। তার প্রাপ্ত ভোট ৭৮হাজার ৩শ ৮৮। নিকটতম প্রতিদ্বন্দি বিশ্বনাথ পৌর মেয়র স্বতন্ত্র প্রার্থী মুহিবুর রহমান (ট্রাক) প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ১৬হাজার ৬শ ৬১ ভোট। ৬১ হাজার ৭শ ২৭ ভোটের ব্যবধানে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন নৌকা প্রতিকের প্রার্থী শফিকুর রহমান চৌধুরী।

এদিকে, নির্বাচনে অংশ নেয়া বাকি ৫ প্রার্থীদের প্রাপ্ত ভোট হলো, জাতীয় পার্টির দলীয় প্রার্থী সাবেক সংসদ সদস্য ইয়াহ্ইয়া চৌধুরী (লাঙ্গল) প্রতিকে পেয়েছেন ৬ হাজার ৮শ ৭৪ ভোট, তৃণমূল বিএনপির আব্দুর রব মল্লিক (সোনালী আশ) প্রতিকে পেছেন ৯শ ৪৪ ভোট, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির মনোয়ার হোসেন (আম) প্রতিকে পেয়েছেন ২শ ৫৩ ভোট, গনফোরামের দলীয় প্রার্থী সাবেক সংসদ সদস্য মোকাব্বির খান (উদিয়মান সূর্য্য) প্রতিকে পেয়েছেন ১৯শ২২ভোট, কংগ্রেস মনোনীত মো: জহির (ডাব) ১৮৫ ভোট।
দুই উপজেলার মোট ভোট গ্রহন হয় ১লক্ষ ৫৯ হাজার ৬৭ ভোট তার মধ্যে বাতিলকৃত ভোট সংখ্যা ১৬শ২০।

প্রসঙ্গত: দুই উপজেলার ১৬টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত এই আসনের মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ-৪৪ হাজার ৭২৯ জন। এরমধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ-৭৬ হাজার ১৪৭ জন, মহিলা ভোটার ১ লাখ-৬৮ হাজার ৫৮২ জন । ১২৮ টি ভোট কেন্দ্রের ৭৭৩ ভোট কক্ষে ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হয়।

প্রাসঙ্গিক সংবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

জনপ্রিয়

Recent Comments